মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৯

মাননীয় মন্ত্রী

জনাব টিপু মুনশি, এমপি

মাননীয় মন্ত্রী, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়


বীর মুক্তিযোদ্ধা টিপু মুনশি ১৯৫০ সালের ২৫ আগস্ট গোপালগঞ্জে এক সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্ম গ্রহণ করেন। পরবর্তীতে রংপুর জেলার পীরগাছা উপজেলার ঘগোয়া গ্রামে বসবাস শুরু করেন। তাঁর পিতা বীর মুক্তিযোদ্ধা রমজান আলী মুনশি এবং মাতা রত্নাময়ী মুনশি। তাঁর স্ত্রীর নাম আইরীন মালবিকা মুনশি।

টিপু মুনশি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক ডিগ্রি অর্জন করেন। তিনি ১৯৬৯ এর গণঅভ্যুত্থানে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন। ৫২ বছর ধরে তিনি রাজনীতির সাথে জড়িত। ১৯৭০ সালে তিনি ঢাকা তিতুমীর কলেজের ছাত্রলীগ নেতা ছিলেন। ১৯৭১ সালে জিন্নাহ সরকারি কলেজের নাম পরিবর্তনে তাঁর ভূমিকা ছিল অগ্রণী, যা আজ সরকারি তিতুমীর কলেজ নামে প্রতিষ্ঠিত। মহান মুক্তিযুদ্ধের পর ১৯৭৩ সালে ঢাকা মহানগর ছাত্রলীগ এর অন্তর্গত তেজগাঁও উত্তরাঞ্চলের সভাপতি হিসেবে তিনি দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৭৬ সালে তিনি ব্যবসার পাশাপাশি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে সক্রিয়ভাবে যুক্ত হন।

উল্লেখ্য, ১৯৯২ সালে তিনি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ গুলশান থানার সভাপতি নির্বাচিত হয়ে বিরতিহীনভাবে ২২ বছর সফলতার সাথে দায়িত্ব পালন করেছেন। এ ছাড়াও তিনি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ রংপুর জেলার সহ-সভাপতি হিসেবে নিষ্ঠার সাথে কাজ করেছেন।  তিনি মাত্র একুশ বছর বয়সে পিতা বীর মুক্তিযোদ্ধা রমজান আলী মুনশিসহ ১৯৭১ এর মহান মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ করেন, যা মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসে বিরল।

তিনি ২০০৮ সালের ২৯ ডিসেম্বর ৯ম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মনোনয়নে রংপুর- ৪ আসন থেকে প্রথমবারের মতো সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। ৯ম জাতীয় সংসদে তিনি বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয় এবং বাণিজ্য মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। তিনি ২০০৯ সালে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ এর কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য নির্বাচিত হন। ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারি ১০ম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মনোনয়নে তিনি রংপুর-৪ আসন থেকে দ্বিতীয়বারের মতো সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। ১০ম জাতীয় সংসদে তিনি স্বরাস্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সভাপতি ও অর্থ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ২০১৭ সালে তিনি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ এর কেন্দ্রীয় কমিটির অর্থ ও পরিকল্পনা সম্পাদক নির্বাচিত হন। তিনি ২০১৮ সালে জাতীয় সংসদের নির্বাচনে রংপুর-৪ আসন থেকে তৃতীয়বারের মত সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। টিপু মুনশি ০৭ জানুয়ারি ২০১৯ তারিখে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মন্ত্রী পরিষদে মন্ত্রী হিসেবে শপথ গ্রহণ করেন এবং বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বপ্রাপ্ত হন।
বীর মুক্তিযোদ্ধা টিপু মুনশি একজন সফল ব্যবসায়ী হিসেবেও প্রতিষ্ঠিত। তিনি ২০০৫-২০০৬ সময়ে বিজিএমইএ এর সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। বর্তমানে গার্মেন্টস মালিকদের মিলিত সংগঠনের সম্মিলিত-ফোরামের চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। তিনি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সফরসঙ্গী হয়ে ব্যবসায়ী প্রতিনিধি হিসেবে আমেরিকা, অস্ট্রেলিয়া, মালয়েশিয়া ও ভারত ভ্রমণ করেন।
টিপু মুনশি বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের সাথে জড়িত। তিনি অসংখ্য জনকল্যাণমূখী প্রতিষ্ঠান গড়ে তোলেন। তিনি ২ কন্যার জনক। গান শোনা, বই পড়া এবং ভ্রমণ তাঁর অন্যতম শখ।


Share with :

Facebook Facebook